এইচএসসি পাসে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করল মেরিন ফিশারিজ একাডেমি, চট্টগ্রাম

আবেদনের শেষ সময়: ২১ জুলাই, ২০১৯

প্রতিষ্ঠান

মেরিন ফিশারিজ একাডেমি, চট্টগ্রাম
মৎস ও প্রানিসম্পদ মন্ত্রণালয়

পদ

অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার অপারেটর

পদসংখ্যা

০১টি

শিক্ষাগত যোগ্যতা

এইচএসসি পাস/সমমান পাস

বেতন

৯,৩০০/- থেকে ২২,৪৯০/- টাকা

আবেদনের শেষ সময় 

২১ জুলাই, ২০১৯

আবেদনের নিয়মসহ বিস্তারিত জানতে নিচের বিজ্ঞপ্তিটি দেখুন
সব সময় চাকরির খবরের আপডেট পেতে ক্লিক করুন এখানে।
ওয়াইএসআই বাংলা জবসে আজই আপলোড করুন আপনার সিভি। রেজিস্ট্রেশনের জন্য ক্লিক করুন এই লিঙ্কে

বাংলাদেশ মেরিন ফিশারীজ একাডেমী

বাংলাদেশ মেরিন ফিশারীজ একাডেমী মৎস্য শিল্প, বণিক জাহাজ এবং অন্যান্য সংশ্লিষ্ট মেরিটাইম শিল্পগুলিতে প্রবেশ করতে আগ্রহী ক্যাডেটদের জন্য বাংলাদেশ সরকারের একটি প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠান। ১৯৭৩ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়। এটি শুধুমাত্র এই সংস্থাগুলির জন্য প্রশিক্ষণ প্রদানের একটি জাতীয় সংস্থা। প্রতিষ্ঠানটি বাংলাদেশের চট্টগ্রাম জেলার কর্ণফুলি উপজেলার অন্তর্গত চর পাথরঘাটা ইউনিয়নের ইছানগর এলাকায় অবস্থিত। ১৯৬২ সালে চট্টগ্রামের জলদিয়াতে জলদিয়া মেরিন একাডেমি নামে এটি চালু হয়।

বর্তমান একাডেমী বাংলাদেশ ফিশারিজ ডেভেলপমেন্ট কর্পোরেশন (বিএফডিসি) এর অধীনে ১ সেপ্টেম্বর, ১৯৭৩ সালে যাত্রা শুরু করে এবং ২০ এপ্রিল, ১৯৮৮ সালে এটি মৎস্য ও পশু সম্পদ মন্ত্রণালয়ের প্রশাসনিক নিয়ন্ত্রণাধীন একটি প্রকল্প হিসেবে আগত। কিন্তু ১ জুলাই, ১৯৯৩ সালে একই মন্ত্রণালয়ের অধীনে রাজস্ব বাজেটে এটি স্থানান্তর করা হয়। এরপর থেকে এটি একাডেমী মন্ত্রণালয়ের প্রশাসনিক নিয়ন্ত্রণের অধীনে কাজ করছে। একাডেমীর কার্যকরী কর্তৃত্ব প্রিন্সিপালের উপর ন্যস্ত হয়, যার তিনটি সহযোগী সংগঠন রয়েছে, যথা: একাডেমিক কাউন্সিল, বোর্ড অব স্টাডিজ এবং বোর্ড অফ ডিসিশন। এ প্রতিষ্ঠানটি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয়ের, অধীনে পেশাদার স্নাতক (সম্মান) কোর্স প্রদান করে।

এই সমস্ত স্বীকৃত কোর্সগুলি, বাংলাদেশ ও অন্যান্য জায়গায় স্বীকৃত। ক্যাডেটদের প্রশিক্ষণের মোট সময়কাল চার বছর। একাডেমিতে পেশাদার এবং একাডেমিক বিষয়গুলির তাত্ত্বিক দিকগুলি অন্তর্ভুক্ত করার জন্য ১ম ও ২য় বর্ষের প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত হয়। প্রতিবছরের সমাপ্তিতে তারা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয়, দ্বারা পরিচালিত বছরের চূড়ান্ত পরীক্ষায় যোগদান করে থাকে। ৩য় বছরের অন্যান্য শিল্প প্রশিক্ষণ, অনুশীলন এবং সহকারী কোর্স জুড়ে দেয়। এই কোর্স সফলভাবে সমাপ্ত হলে তারা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয়, অধীনে চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। তারপরে সামুদ্রিক মৎস্য একাডেমী ট্রেনিংটি পাস করলে স্নাতক সার্টিফিকেটের পুরস্কার প্রদান করে।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয়, এর অধীনে মেরিন ফিশারীজ একাডেমীতে বিএসসি (সম্মান) নটিক্যাল , বিএসসি (সম্মান) মেরিন ইঞ্জিনিয়ারিং এবং বিএসসি (সম্মান) মেরিন ফিসারিজে ভর্তির জন্য আবেদনকারীর আগ্রহী পুরুষ নাগরিকদের আমন্ত্রণ জানানো হয়ে থাকে। এক প্রার্থী কোন এক কোর্সের জন্য অথবা তিনটি কোর্সের জন্য আবেদন করতে পারে। এই পরীক্ষাটি এইচএসসি পরীক্ষায় ইংরেজি, পদার্থবিজ্ঞান, রসায়ন ও সাধারণ জ্ঞান, যা নটিক্যাল / মেরিন ইঞ্জিনিয়ারিং এবং মেরিন ফিশারীজ গ্রুপ, নটিক্যাল / মেরিন ইঞ্জিনিয়ারিং গ্রুপের গণিত এবং মেরিন ফিশারিজ গ্রুপের জীববিজ্ঞান উভয়ের জন্য সাধারণ বিষয়। যদি কেউ তিনটি বিভাগীয় কোর্সের জন্য আবেদন করেন তবে তাকে একটি পরীক্ষা নটিক্যাল এবং মেরিন ইঞ্জিনিয়ারিং গ্রুপের জন্য ও অন্য একটি পরীক্ষা মেরিন ফিশারিজ গ্রুপের জন্য দিতে হবে।

Bangladesh Marine Fisheries Academy

Marine Fisheries Academy (MFA) also known as Bangladesh Marine Fisheries academy (BMFA) is a government-run training institution in Bangladesh for cadets wishing to enter the merchant shipping, fishing industry and other related maritime industries. Established in 1973, it is the only national organization offering training for both professions (merchant navy, fishing industry).Continuous Discharge Certificate (CDC) is also issued to the cadets of Nautical and Marine Engineering departments by the Department of Shipping which allows them to look south to venture out all the seas around the globe.

Marine Fisheries Academy is affiliated with the Bangabandhu Sheikh Mujibur Rahman Maritime University (BSMRMU),Bangladesh for 4 years B.Sc. (Hons.) program in Nautical Science, Marine Engineering and Marine Fisheries courses. The academy started its journey as a project of Bangladesh Fisheries Development Corporation (BFDC) on 1 September 1973 and on 20 April 1988 it came under the administrative control of Ministry of Fisheries and Livestock as a project. But on 1 July 1993 the Academy was transferred to revenue budget under the same Ministry. Since then the Academy is functioning under the Administrative control of the Ministry.

The functional authority of the Academy is vested on the Principal who has three assisting organs namely Academic Council, Board of Studies and Board of Discipline.Marine Fisheries Academy is affiliated with the Bangabandhu Sheikh Mujibur Rahman Maritime University, Bangladesh for 4 years B.Sc. (Hons.) program in Nautical Science, Marine Engineering and Marine Fisheries courses. The academy offers a range of professional bachelor degree 4 years B.Sc. (Hons.) program in Nautical Science, Marine Engineering and Marine Fisheries courses under Bangabandhu Sheikh Mujibur Rahman Maritime University.

These are accredited courses, recognized throughout Bangladesh and elsewhere. The total duration of training of the cadets is four years. Out of that 3-year training is conducted in the Academy to cover the theoretical aspects of professional and academic subjects. On completion of each year, they attend year final examination conducted by Bangabandhu Sheikh Mujibur Rahman Maritime University. In this academic year covers industrial training, practice and ancillary courses. There after the Marine Fisheries Academy training culminates with the passing out parade and award of graduation certificates.

Out of 4 years rest 1 year sea training in merchant ship. Applications are invited from interested male citizens of Bangladesh for admission in B. Sc. (Hons) Nautical Science, B. Sc. (Hons) Marine Engineering and B. Sc. (Hons) Marine Fisheries Courses of Marine Fisheries Academy under the affiliation of Bangabandhu Sheikh Mujibur Rahman Maritime University. One candidate may apply for any one course or for all three courses.

This test is conducted on HSC standard subjects like English, Physics, Chemistry and General Knowledge which are common subjects for both Nautical/ Marine Engineering and Marine Fisheries Groups, Mathematics for Nautical/ Marine Engineering Group and Biology for Marine Fisheries Group. If someone opts for all three Departmental courses then he has to appear separate examination one for nautical science, marine engineering and another for marine fisheries.

সুত্রঃ উইকিপিডিয়া।

Comments
Comments

Comments are closed.